image

আজ, বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯ ইং

নিরাপদ সড়ক আন্দোলনে হামলার বর্ষপূর্তিতে শিক্ষার্থীদের কর্মসূচি 

ঢাকা ব্যুরো    |    ০০:৫০, আগস্ট ৫, ২০১৯

image

গতবছর নিরাপদ সড়ক আন্দোলন শুরু হয়েছিলো  ২ আগষ্ট থেকে ৬ আগষ্ট পর্যন্ত। রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে শান্তি প্রিয় শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়েছিলো  এমনকি ৪ ঠা আগষ্ট রাজধানীর ঝিগাতলায় সন্ত্রাসীদের শিক্ষার্থীদের উপর গুলিবর্ষণ করতেও দেখা যায়। এতে কয়েক শত সাধারণ শিক্ষার্থীসহ বেশ কিছু গণমাধ্যম কর্মী গুরুতর আহত হয়েছিলো। এছাড়াও ৫-৬ আগষ্ট  কয়েকটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়েও সন্ত্রাসীদের হামলা করতে দেখা যায়।পরবর্তীতে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে হামলাকারী সন্ত্রাসীদের পরিচয় চিহ্নিত করা হয়, তবে এক বছর পেরিয়ে গেলেও হামলাকারী সন্ত্রাসীদের আইনের ধরাছোঁয়ার বাইরে থেকে গেছে। হামলাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ না করে কয়েক শত আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের নামে মামলা এবং কয়েক হাজার শিক্ষার্থীর নামে অজ্ঞাত নামা মামলা দেয়া হয়েছে। এতে করে শিক্ষার্থীদের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা এবং পড়ালেখায় অসুবিধা হচ্ছে। একটি শান্তিপূর্ণ ছাত্র আন্দোলনকে ঘিরে এরূপ অরাজকতা এবং আইনের অবমাননা সমগ্র ছাত্র আন্দোলনটিকে কলঙ্কিত করে বলে আমরা মনে করি। এ  প্রেক্ষিতে রোববার  নিরাপদ সড়ক আন্দোলনকারীদের সমন্বয়ে গড়ে তোলা সংগঠন 'নিরাপদ সড়ক আন্দোলন (নিসআ)' এর পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলাকারীদের বিচার এবং শিক্ষার্থীদের নামে থাকা সকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে ঢাকার সায়েন্সল্যাব মোড়ে শান্তিপূর্ণ মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়।

মানববন্ধনে 'নিসআ' এর কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম-আহ্বায়ক ইনজামুল হক বলেন, ২০১৮ এর নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের এক বছর অতিবাহিত হওয়ার পরও চিহ্নিত হামলাকারীদের বিচারের আওতায় না আনা প্রমাণ করে, বাংলাদেশের বিচার ব্যবস্থা কতটা নাজুক হয়ে পরেছে। একটি স্বাধীন দেশের এরকম বিচার ব্যবস্থা আমাদের সকল সচেতন নাগরিকদের জন্য উদ্বেগজনক।

এছাড়াও মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন সাব্বির হোসেন, মাসুদ শাহরিয়ার জেরিন আনিকা, মেহেরুননেসা নিশু প্রমুখ ।

মানববন্ধনে শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে দাবি-দাওয়া তুলে ধরেন ‘নিসআ’ এর অন্যতম যুগ্ন-আহবায়ক নওফেল হাসান মায়াব্বিজ।
দাবিগুলো হলো:
১. ২০১৮ এর নিরাপদ সড়ক আন্দোলনকারীদের ওপর হামলাকারী সকল সন্ত্রাসীদের দ্রুত বিচারের আওতায় এনে সর্বোচ্চ শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে।
২. ২০১৮ এর নিরাপদ সড়ক আন্দোলনে শিক্ষার্থীদের নামে যে সকল মিথ্যা মামলা রয়েছে তা অনতিবিলম্বে প্রত্যাহার করতে হবে।
৩. ২৯ জুলাই ২০১৯ প্রেসক্লাব থেকে নতুন করে ঘোষিত সড়ক আন্দোলনকারীদের ৯ দফা দ্রুত বাস্তবায়নের দাবি জানান।
                                                                                                            
দাবি গুলো হচ্ছে
১. ঢাকাসহ সারাদেশের ডিজিটাল বাংলাদেশের প্রত্যয় এর সাথে সামঞ্জস্যতা রেখে ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা অবিলম্বে স্বয়ংক্রিয় ও আধুনিকায়ন করতে হবে।
২. ঢাকাসহ সারাদেশে শিক্ষার্থীদের জন্য হাফ ভাড়ার ব্যবস্থা করতে হবে, এক্ষেত্রে সরকার ও বাস(বেসরকারি) মালিকদের সাথে সমন্বয় করতে হবে।
৩. প্রতিযোগিতাশীল, দায়িত্বহীন, অতি গতি ও বেপরোয়া চালানোর কারণে দুর্ঘটনা করলে চালককে সর্বোচ্চ শাস্তির আওতায় আনতে হবে।
৪. জনসাধারণের চলাচলের স্বার্থে ফুটপাত, ফুটওভার ব্রিজ বা বিকল্প নিরাপত্তাব্যবস্থা দ্রুততর সময়ের মধ্যে বাস্তবায়ন করতে হবে।
৫. যথাযথ তদন্ত সাপেক্ষে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতের দায়ভার যথাযথ ব্যক্তিকে নিতে হবে।
৬. বৈধ ও অবৈধ সকল যানবাহন চালকদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বৈধতার আওতায় এনে সড়ক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে।
৭. ট্রাফিক আইনের প্রতি জনসচেতনতা বৃদ্ধির সুবিধার্থে প্রাথমিকের পাঠ্যপুস্তক সাজাতে হবে।
৮. গণপরিবহন গুলোকে নিদৃষ্ট স্টপেজ ব্যতীত যাত্রী ওঠা-নামা বন্ধ করতে হবে, এক্ষেত্রে প্রয়োজনে কঠোর আইনের প্রয়োগ করতে হবে।
৯. বিআরটিএ'র সকল কর্মকাণ্ডের ওপর নজরদারি বাড়াতে হবে এবং জবাবদিহিতার আওতায় আনতে হবে।



image
image

রিলেটেড নিউজ

Los Angeles

০১:৪৮, জুলাই ১২, ২০১৯

এবার লক্কর-ঝক্কর বাসে ফেনসিডিলের চালান !


image
image
image

আরও পড়ুন

Los Angeles

০০:৫০, অক্টোবর ২৩, ২০১৯

রাউজানে লরির ধাক্কায় প্রাণ গেল বৃদ্ধের


Los Angeles

০০:২৮, অক্টোবর ২৩, ২০১৯

চন্দনাইশের দোহাজারীতে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে আহত বিদ্যুৎ শ্রমিকের ৭দিন পর মৃত্যু


Los Angeles

১৮:৪৪, অক্টোবর ২২, ২০১৯

প্রাণনাশের শঙ্কায় কর্ণফুলীতে দিদার চেয়ারম্যানের জিডি