image

আজ, বুধবার, ৩ জুন ২০২০ ইং

কুতুবদিয়া-মগনামাঘাটের যাত্রীদের সীমাহীন দূর্ভোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক    |    ০০:০৫, নভেম্বর ১৫, ২০১৯

image

জীবন জীবিকার তাগিদে, চাকরির প্রয়োজনে প্রতিদিন কক্সবাজারের কুতুবদিয়া-মগনামা চ্যানেল পারাপারে জীবনের চরম ঝুঁকি নিয়ে দীর্ঘ ৫ থেকে ৭ কিলোমিটার দূরত্বের কুতুবদিয়া চ্যানেলে সৃষ্ট বঙ্গোপসাগরের জলরাশি পাড়ি দিয়ে মগনামা জেটিঘাট থেকে দরবার ও মগনামা থেকে বড়ঘোপে যাতায়াত করছে প্রতিদিন অন্তত ৩ হাজারের অধিক যাত্রী। যাতায়াতের জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে ডেনিস বোট (স্থানীয় নাম)। সেই সাথে অতিরিক্ত যাত্রীবহনে ভোগান্তি ও মালামাল বোঝায় করে লাইফ জ্যাকেট ছাড়াই নিয়মিত চলছে এই ডেনিস বোট। এতে যাত্রীদের বিভিন্ন অসুবিধাসহ জীবনের চরম ঝুঁকি নিয়ে কুতুবদিয়া-মগনামা চ্যানেল পাড়ি দিতে হচ্ছে নিয়মিত। ফলে যে কোনো মুহূর্তে বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কা রয়েছে।

মগনামা ঘাটে ডেনিস বোটের যাত্রী হয়রানী, দৌরাত্ম্যের যেন শেষ নেই। মাঝে মধ্যে নির্ধারিত ভাড়ার চেয়েও অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করার অভিযোগ উঠে সাধারণ যাত্রীদের কাছ থেকে। গ্রীষ্মের সময় প্রচন্ড রোদে আর বর্ষার বৃষ্টিমুখর সময়ে বোট গুলোতে থাকেনা কোন ধরনের ছাউনি। সাধারন যাত্রীদের সাথে শিশু ও রোগীদেরও পোহাতে হয় চরম দুর্ভোগ। মাঝ নদীতে হঠাৎ বৃষ্টি হলে ভিজানো ছাড়া কোন আশ্রয় নেই। বোটগুলোতে লাইফ জ্যাকেট ব্যবহার করা হয়না। দীর্ঘ দূরত্বের পথ পাড়ি দিতে যে কোন সময় ঘটে যেতে পারে মারাত্মক দুর্ঘটনা। এদের এমন হেয়ালীপনার ফলে চরম মৃত্যু ঝুঁকি নিয়ে পাড়ি দিচ্ছে দীর্ঘ সমুদ্রের জল রাশি। সমুদ্রে চলাচলকারী যাত্রীবাহী বোটগুলো মানছেনা কোন নিয়মনীতি। প্রতি ঘন্টার ২০ মিনিটের ট্রিপে জনপ্রতি ২০ টাকা করে মোট দুই থেকে আড়াই হাজার টাকার ভাড়া ও প্রতিঘন্টার ৩০ মিনিটের ট্রিপে জনপ্রতি ৪০ টাকা করে প্রতিবোট ৪ থেকে ৫ হাজার টাকার ভাড়া আদায় করে। অথচ নেই কোন যাত্রী সেবা।

মগনামাঘাট দিয়ে প্রতিদিন যাতায়াতকারী সাইফুল ইসলাম নামের এক যাত্রী জানান- 'আমি ওই পথ দিয়ে যতবার যাতায়াত করেছি, মুমূর্ষু রোগীদের, মহিলাদের, বৃদ্ধ লোকদের হাহাকার দেখেছি, বর্ষার সময় কোন লাইফ জ্যাকেট নাই, অতি রিস্কের মধ্যে অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে চলে এই ডেনিস বোটগুলো। যাত্রীদের কোন কদর নেই। নেই বসার ব্যবস্থা। মাথার উপর রোদ, মাঝ নদীতে হঠাৎ বৃষ্টি হলে নেই কোন আশ্রয়। মাঝে মধ্যে দ্বিগুন ভাড়াও গুনতে হয়।' 

যথাযথ কতৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করে - 'ঝুঁকিপূর্ণ যাতায়ত থেকে রক্ষা পেতে ডেনিস বোটের উপরে যাত্রী ছাউনির ব্যবস্থা করা, যাত্রীদের বসার জন্য চেয়ার/বেঞ্চের ব্যবস্থা করা, ধারণ ক্ষমতার বাহিরে অতিরিক্ত যাত্রী না নেওয়া, লাইফ জ্যাকেট প্রস্তুত রাখা সহ নির্ধারিত ভাড়া আদায় করার দাবী জানিয়েছেন সাধারণ যাত্রীরা। অন্যতায় ডেনিস বোটের বিকল্প হিসেবে নিরাপদ যাত্রার জন্য দোতলা লঞ্চ সেবা চালু করার দাবীও জানান তারা।'



image
image

রিলেটেড নিউজ

Los Angeles

১৫:৫৭, মে ২০, ২০২০

বাঁশখালীতে খুলে দেওয়া হয়েছে সবকটি আশ্রয় কেন্দ্র


Los Angeles

১৭:৫৬, মে ১৪, ২০২০

অভিনব কৌশলের কাছে ধরাশায়ী কেপিজেড’র বহু চাকরী প্রত্যাশাী


Los Angeles

২৩:১০, মে ১২, ২০২০

কর্ণফুলীতে করোনা ও এনজিও দুই চাপে দিশেহারা অসহায় ঋণ গ্রহীতারা


Los Angeles

১৪:০৩, এপ্রিল ৭, ২০২০

করোনাভাইরাস আতঙ্কে ভেঙে পড়েছে আনোয়ারার চিকিৎসা ব্যবস্থা


Los Angeles

২০:২৫, মার্চ ২৭, ২০২০

আনোয়ারায় করোনা দূর্ভোগে হত-দরিদ্র মানুষ


Los Angeles

০০:০২, মার্চ ২৬, ২০২০

বাঁশখালীর করোনা ভাইরাস ধুলোবালির সড়ক


Los Angeles

২১:০১, মার্চ ২২, ২০২০

আনোয়ারায় হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও মাস্ক অপ্রতুলতায় জনমনে ক্ষোভ


Los Angeles

১৭:৪১, মার্চ ২০, ২০২০

আনোয়ারা-বরকল সড়কের মেরামত কাজে অনিয়মে ইউএনও’র ক্ষোভ,সওজ’র প্রত্যাখ্যান


image
image