image

আজ, শুক্রবার, ১০ জুলাই ২০২০ ইং

আনোয়ারায় হাইড্রোলিক রাবার ড্রাম ও বেড়িবাঁধ বাড়িয়েছে আউশ’র আবাদ

জাহাঙ্গীর আলম, আনোয়ারা সংবাদদাতা    |    ২৩:২৫, জুন ২০, ২০২০

image

আনোয়ারা ঝিঁওরি গ্রামে মাঠে আউশ রোপনে ব্যস্ত কৃষক

আনোয়ারায় আউশ ধান রোপনে ব্যস্ত সময় পার করছেন কৃষকরা। দেশের প্রথম হাইড্রোলিক রাবার ড্রাম প্রকল্প বাস্তবায়ন ও বেডিবাঁধ নির্মিত হওয়ায় গত বছরের চেয়ে এবছর পতিত জমিসহ দ্বিগুন জমি চাষাবাদ উপযোগী করে ২ হাজার ৩ শত হেক্টর জমিতে আউশ চাষের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে পুরোধমে চলছে চাষাবাদ । এবছর বাংলাদেশ পরমানু গবেষণা ইউনিষ্টিটিউট ময়মনসিংহ থেকে উন্নত জাতের বীজ ধান এনে বিনামূল্যে কৃষকদের মাঝে বিতরণের মধ্য দিয়ে চাষাবাদের গতি বাড়ানো হয়েছে। ফলে প্রত্যাশিত ফলনও বাড়বে বলে আশা সংশ্লিষ্টদের ।

আনোয়ারা উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা যায়, উপজেলার উপকূল এলাকায় বেডিবাঁধ নির্মান ও পানি নিষ্কাসনের জন্য দেশের প্রথম হাইড্রোলিক রাবার ড্রাম প্রকল্প বাস্তবায়ন হওয়ায় আনোয়ারার বৈরাগ, বারশত, রায়পুর, বটতলী, বরুমচড়া, বারখাইন, চাতরী, আনোয়ারা, পরৈকোড়া, হাইলধর ও জুইঁদন্ডিসহ সব ইউনিয়নের অনাবাদী জমিতেও এবছর আউশের চাষাবাদ চলছে। ফলে গত বছরের লক্ষ্যমাত্রা ১৩ শত হেক্টর থাকলেও   এবছর ২ হাজার ৩ শত হেক্টর জমিতে আউশের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। গত বছরের চেয়ে যা প্রায় দ্বিগুন। তাছাড়া এ বছর নতুন উন্নত মানের জাত বিনা-১৯ ও  ব্রি-৮২ ধান কৃষকদের প্রদান করা হয়।

আনোয়ারা কৃষি অফিস থেকে ৭শত কৃষককে ইতোমধ্যে আউশ প্রণোদনা হিসেবে প্রত্যেক কৃষককে ৫ কেজি উন্নত ধানবীজ প্রদান করা হয়েছে। এছাড়া ১২ জন কৃষককে আউশ প্রদর্শনী দেয়া হয়েছে। 

সরেজমিনে শনিবার সকালে ঝিঁউরি এলাকায় ধানের মাঠ পরিদর্শন কালে দেখা যায়, কৃষকরা কেউ জমিতে চাষ আবার কেউ চারা রোপনে ব্যস্ত।

স্থানীয় কৃষক দিবাকর ঘোষ(৪০) জানায়, এ বছর তিনি ১ একর জমিতে আউশ চাষ করছেন। আজ-কালের মধ্যে রোপন সম্পন্ন হবে। 

শোলকাটা গ্রামের বাসিন্দা সফল কৃষক এসএম মহিউদ্দিন জানায়, উপজেলা কৃষি অফিস বিনামূল্যে বীজ ও নানা প্রনোদনাসহ সব ধরণের সহযোগিতা দেয়ার কারণে চাষাবাদে কৃষকদের মাঝে আগ্রহ বেড়ে গেছে। 

আনোয়ারা উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা হাসানুজ্জামান জানান, করোনা পরবর্তীতে ফসলের উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও কৃষিমন্ত্রীর আহবানে সাড়া দিয়ে আনোয়ারায় চাষযোগ্য সকল জমিতে ফসল উৎপাদনের লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছে কৃষি অফিস।

বাংলাদেশ পরমানু গবেষণা ইউনিষ্টিটিউট ময়মনসিংহ থেকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার শেখ জোবায়ের আহমদ’র সহযোগিতায় উন্নত জাতের দেশীয় ফলনশীল ৫ শত কেজি বিনা-১৯ ধান সংগ্রহ করা হয়েছে। তার সাথে ব্রি-৮২ ধানসহ ৭শত কৃষক পরিবারের মাঝে বিনামূল্যে বীজ বিতরণ করা হয়েছে। ইনশাল্লাহ প্রকৃতি অনুকুলে থাকলে এ বছর প্রত্যাশিত ফলনও বাড়বে।

তিনি বলেন, আমরা আশা করছি ২৩ শত হেক্টর জমি লক্ষ্যমাত্রা থাকলেও তা ছাড়িয়ে ৩ হাজার হেক্টরের বেশি জমিতে চাষ হবে।

তিনি আরো জানান, উপজেলা কৃষি অফিসের সকল কর্মকর্তা ও ব্লক সুপারভাইজারগণ কৃষকদের যাবতীয় পরামর্শ ও সহযোগিতা দিতে মাঠে কাজ করে যাচ্ছেন।



image
image

রিলেটেড নিউজ

Los Angeles

১৪:৩০, জুলাই ৮, ২০২০

বাঁশখালীর শিলকুপ-টাইমবাজার ভাঙ্গা সড়ক কাদা পানিতে একাকার


Los Angeles

১৬:৩৪, জুলাই ৭, ২০২০

জোয়ারের পানিতে ভাসছে আনোয়ারার বার আউলিয়া এলাকা


Los Angeles

১৫:৪১, জুলাই ৭, ২০২০

বাঁশখালীতে দুই বেইলি ব্রীজের জীর্ণ দশা : চরম ঝুঁকিতেই পারাপার


Los Angeles

১০:৪০, জুলাই ৬, ২০২০

আইসিসি আম্পায়ারিং থেকে সফল খামারি চট্টগ্রামের রবিউল


Los Angeles

০০:১০, জুলাই ৫, ২০২০

মিয়ানমার থেকে গবাদিপশু আমদানি শুরু


Los Angeles

২২:৩৮, জুলাই ২, ২০২০

উখিয়ায় বোরো ধান সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা পূরণে সংশয়


image
image
image

আরও পড়ুন

Los Angeles

০১:০৮, জুলাই ১০, ২০২০

উখিয়ায় ভূমিদস্যুদের থাবায় ক্ষতবিক্ষত সরকারী পাহাড়


Los Angeles

০০:৫৮, জুলাই ১০, ২০২০

কুতুবদিয়ায় ঘাট পারাপারে জটিলতা নিরসন : ৩০ টাকা ভাড়া নির্ধারণ


Los Angeles

০০:৫৪, জুলাই ১০, ২০২০

অবশেষে চাকরী খোয়ালেন আইসোলেশন সেন্টারের দুই চিকিৎসক