image

আজ, বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং

উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে জমে উঠেছে ঈদ বাজার, বিক্রি হচ্ছে দেশী ও মিয়ানমারের পোশাক

কায়সার হামিদ মানিক, উখিয়া (কক্সবাজার) সংবাদদাতা    |    ০০:৪০, মে ২৯, ২০১৯

image

কক্সবাজারের উখিয়ার বিভিন্ন রোহিঙ্গা ক্যাম্পে জমজমাট চলছে ঈদ বাজার। এবং সেখানকার দোকানগুলোতে বিক্রি হচ্ছে দেশী-বিদেশী পণ্য ও সামগ্রী। সেই সাথে ঈদকে ঘিরে তাঁদের স্বদেশ মিয়ানমারের পণ্যও বিক্রি হচ্ছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, এবারে ঈদ আয়োজনে রোহিঙ্গারা বেশ মেতে উঠেছে। মুখরিত ক্যাম্পের অলিগলিতে যেন অগ্রীম ঈদের হাওয়া বইছে। পবিত্র ঈদ পালনের নানা প্রস্তুতি চলছে ক্যাম্পের অভ্যন্তরে। মুসলিম বিশ্বের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন হিসেবে অনেকেই বেশ আমেজের সাথে এই পবিত্র ঈদুল-ফিতরকে বরণ করতে চান। তবে অনেকের মধ্যে সেই উল্লাসতা দেখা যায়নি।

রোহিঙ্গা বাজারে বিক্রি হচ্ছে দেশি পণ্য এবং মিয়ানামার থেকে টেকনাফ বন্দর দিয়ে ইমপোর্ট হওয়া চাইনিজ ও বার্মিজ কাপড়-সেন্ডেল সহ ইত্যাদি বিভিন্ন সামগ্রি। সেখান থেকে পাইকারী দরে কিনে এনে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বাজার দরে বিক্রি করা হচ্ছে। সেখানে বিদেশী পণ্য বিক্রি হতে দেখা গেছে এমন কিছু সামগ্রী যেমন : চাইনিজ ও বার্মিজ কাপড়ের মধ্যে পুরুষদের লুঙ্গি, গেঞ্জি-প্যান্ট, শার্ট, সেন্ডেল সহ ইত্যাদি পণ্য-সামগ্রী। মহিলাদের পোশাকের মধ্যে বার্মিজ থামি, লেহেঙ্গা, চাইনিজ পোশাক, জুতা ও বিভিন্নরকম ডিজাইনের তাঁদের নিজস্ব রীতির কস্টিউমস, কসমেটিক সহ ইত্যাদি দেখাগেছে। রোহিঙ্গা বাচ্চাদের জন্যেও তাঁদের স্বদেশী পোশাক-সেন্ডেল-জুতা সহ মিলছে নানরকম পণ্যের সমাহার।

এদিকে দেশী পণ্যও বিক্রি করছেন রোহিঙ্গা দোকানীরা। জিন্স প্যান্ট, টি-শার্ট, মেয়েদের বিভিন্ন ডিজাইনের থ্রি-পিস ও পাথর লাগানো ফ্রক সহ দেশীও কাপড়চোপড় এবং জুতা-সেন্ডেল, বেল্ট ইত্যাদি সাজগোজের কসমেটিকস বিক্রি করছেন।

রোহিঙ্গারা বাংলাদেশে অবস্থানের পর এ নিয়ে তৃতীয়বারের মতো ঈদ উদযাপন করতে যাচ্ছেন। পূর্বের তুলনায় এই ঈদ একটু অনন্য বলে মনে করছেন রোহিঙ্গা ক্যাম্পের দোকানদাররা।

তাঁরা মনে করে আরো বলেন,”শুরুর দিকে এসে ব্যবসা তেমন জমাতে পারেনি আমরা। দোকানপাট তৈরি ও জমি প্রস্তুত করা হয়নি প্রথম দিকে। এখানে এসেই মাথা গুঁজে থেকেছি। পরে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়াতে একটু একটু ব্যবসায় হাত দিয়েছি এবং স্থানীয় দোকান থেকে পাইকারী দরে মালামাল ক্রয় করে রোহিঙ্গা বাজারে বিক্রি করছি বর্তমানে। তাই আমরা মনে করছি এবারে ঈদ উৎসবমুখর হতে পারে। কেননা সবাই এখন মুটামুটি দাঁড়িয়েছে একটা জায়গায়। ক্যাম্পের অনেকেই ঈদের বাজার করার সামর্থ রাখে বর্তমানে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক রোহিঙ্গা ব্যবসায়ী বলেন,আমি দোকান করছি বউয়ের সোনা-দানা বিক্রি করে ৬০ হাজার টাকা জমি ভাড়া নিয়ে। মিয়ানমারেও দোকান করতাম। কাপড়চোপড় বিক্রির প্রতিষ্ঠান ছিল সেখানে। তাই এখানে এসেও এই ব্যবসায় নেমেছি।

তিনি আরো বলেন,”রোহিঙ্গারা অনেকেই কিনছে আবার অনেকেই না। সবমিলিয়ে চলছেই ঈদ বাজার। ঈদের বাকি আরো কয়েকদিন তাই অনেকেরই কেনাকাটা বাকি।

আরেক ব্যবসায়ী সাকের বলেন,আমরা ওখানেও (মিয়ানমার) এই ব্যবসা করতাম। তবে ওখানে যেভাবে লাভবান হতাম, এখানে সেরকম লাভ করতে পারিনা। তবে এখন ঈদ উপলক্ষে কাস্টমার স্বাভাবিকের ছেয়ে ক্রমান্বয়ে বাড়ছে।



image
image

রিলেটেড নিউজ

Los Angeles

১৮:৫৪, আগস্ট ২৯, ২০১৯

হাটহাজারীর ভন্ড পীর নেজামের কুকীর্তি ফাঁস


Los Angeles

১৮:৪৫, আগস্ট ২৯, ২০১৯

আমন বপনে মগ্ন আনোয়ারার কৃষকরা


Los Angeles

১৮:৩৮, আগস্ট ২৯, ২০১৯

কবুতরে সৌখিন থেকে স্বাবলম্বী বাঁশখালীর কবির মিস্ত্রী


Los Angeles

১০:০৩, আগস্ট ২৭, ২০১৯

সুপেয় পানির হাহাকার বাঁশখালীর একটি স্কুলের ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের


Los Angeles

০১:০৯, আগস্ট ২৪, ২০১৯

সম্ভাবনাময় পর্যটন কেন্দ্র বাঁশখালী সমুদ্র সৈকত


Los Angeles

২৩:৫৬, আগস্ট ২৩, ২০১৯

স্কুল পর্যায়ে প্রথম নির্মিত বোয়ালখালীর কধুরখীল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের শহীদ মিনার


Los Angeles

২১:১৪, আগস্ট ১০, ২০১৯

কোরবানি ঘিরে আনোয়ারায় কদর বেড়েছে গাছের গুঁটি ও দা-চুরির


Los Angeles

২০:৪৯, আগস্ট ১০, ২০১৯

ফটিকছড়িতে জমে উঠেছে কোরবানী পশুর হাট : চাহিদা দেশী গরুর


image
image
image

আরও পড়ুন

Los Angeles

১৪:৩১, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৯

টেকনাফে চীনের প্রতিনিধি দলকে রোহিঙ্গারা, ‘দাবী না মানলে মিয়ানমারে ফিরবো না’


Los Angeles

১৪:১৫, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৯

পেকুয়ায় বিয়ের প্রলোভনে এক যুবতীকে ধর্ষণের অভিযোগ, আটক-১


Los Angeles

১৩:৫৫, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৯

রাঙ্গুনিয়ায় দিনব্যাপী ব্লাড ক্যাম্পিং